৪নং খাদিমপাড়া ইউনিয়ন,১নং ওয়ার্ড সৈয়দপুর, জাহানপুর,আলুরতল রাস্তার বেহাল দশা

প্রকাশিত: ১:৪৯ অপরাহ্ণ, জুন ২০, ২০২০

৪নং খাদিমপাড়া ইউনিয়ন,১নং ওয়ার্ড সৈয়দপুর, জাহানপুর,আলুরতল রাস্তার বেহাল দশা

সৈয়দ সাইফুল ইসলাম নাহেদ:- নিয়তি যেন পিছু ছাড়ছে না সৈয়দপুর, জাহানপুর, আলুরতল এলাকাবাসীর সিলেট শহরতলী ৪নং খাদিমপাড়া ইউনিয়ন,১নং ওয়ার্ড সৈয়দপুর, জাহানপুর,আলুরতল রাস্তাটি সংস্কার হচ্ছে না দির্ঘদিন থেকে। দেখলে মনে হবে যেন ধান চাষের জন্য লাঙ্গল চুষে গেছে চাষি। জাহানপুরের এই রাস্তাটি নিয়ে গত ২৩ ডিসেম্বর (সৈয়দপুর, জাহান পুর, আলুরতল, রাস্তার বেহাল অবস্থা) শিরোনামে একটি প্রতিবেদন বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশ হয়। সংবাদ টি প্রকাশ হওয়ার পরেই কর্তৃপক্ষের নজরে আসে। রাস্তাটির সংস্কার কাজ শুরু করা হয়। যা করোনা ভাইরাসের কারণে বন্ধ হয়ে যায়। রাস্তাটি থেকে যায় আগের রুপে ভাঙ্গাচুরা যানবাহন চলাচলের অনুপযোগী যার কারণে সব সময় যানবাহন পাওয়া যায় না । চরম দুর্ভোগে আছেন এলাকাবাসী। প্রতিনি ঘটছে ছোট বড় দূর্ঘটনা এসব রাস্তা যান চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। ভাঙ্গা রাস্তা দিয়ে ভারী যানবাহন চলাচল করায় খানাখন্দ আরও বাড়ছে।

৪নং খাদিমপাড়া ইউনিয়ন , ১নং ওয়ার্ড রিক্সাচালক মফিজল হক বলেন, রাস্তার বেহাল দশার কারণে রিক্সা চালিয়ে শান্তি পাই না। সময় বেশি লাগে, আর প্রায় প্রতি সপ্তাহেই রিক্সা ঠিকঠাক করতে হয়। এর পেছনেই অনেক টাকা ব্যয় হয়।
জানা যায়, ৪নং খাদিমপাড়া ইউনিয়ন , ১নং ওয়ার্ড সৈয়দপুর, জাহান পুর, আলুরতল, রাস্তাটি বেহাল দশায় পরিণত হয়েছে। ১কিলোমিটার রাস্তার মধ্যে পুরো রাস্তা চলাচলের অনুপযোগী। সৈয়দপুর, জাহান পুর,আলুরতল, কয়েক হাজার মানুষ চলাচল করেন । সি.এন.জি অটোরিকশা, রিক্সা-ভ্যানযোগে এক কিলোমিটার রাস্তা যেতে লাগে প্রায় ১০ থেকে ১৫ মিনিট। প্রায় ১ বছরেরও বেশি সময় থেকে রাস্তাটির এই বেহাল দশা হলেও রাস্তাটি মেরামতে নেওয়া হয়নি কোন উদ্যোগ।

স্থানীয় লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে রাস্তার এই বেহাল দশা। নিয়মিত সংস্কার না করায় রাস্তাগুলোর এমন অবস্থা হয়েছে,রোগী ও বয়স্ক মানুষদের নিয়ে এসব রাস্তায় চলাচল করতে আমাদের বেশি সমস্যায় পড়তে হয়
এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে দ্রুত সড়কগুলোতে সংস্কারের দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা ।

যেসব যানবাহন চলে দ্বিগুণ ভাড়া দিতে হয়, একটু বৃষ্টি হলে পানি জমে যায়। পথচারীরা হাঁটতে পারে না জামা কাপড় নষ্ট হয়ে যায় এলাকাবাসীর দাবি লকডাউন শিথিল হয়েছে এখন তাড়াতাড়ি রাস্তাটা মেরামত করে দিলে তাঁরা স্বচ্ছন্দে চলাফেরা করতে পারবে।

সিলেটের চাকরির খবর / তানজিনা বেগম

সংবাদটি 365 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন